মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১ | ৩ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
সীমানার ওপারে

১২০ ডলারে সৌদি ভ্রমণের সুবর্ণ সুযোগ

অনলাইন ডেস্ক
০৩ মে ২০২১

পর্যটকদের জন্য সৌদি আরব সব সময়ই বেশ আকর্ষণীয় জায়গা। কিন্তু ২০১৯ সালের আগ পর্যন্ত দেশটিতে ভ্রমণ ভিসার কোনো ব্যবস্থা ছিল না। শুধুমাত্র হজ, শ্রমিক ও ব্যবসায়ীরা দেশটিতে যাওয়ার সুযোগ পেতেন। তবে ওই বছরের সেপ্টেম্বরে দেশটির কর্তৃপক্ষ প্রথমবারের মতো টুরিস্ট ভিসা চালু করে।

সম্প্রতি নতুন এক নির্দেশনায় সৌদি কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, তারা ১২০ ডলারের বিনিময়ে ৪৯টি দেশকে টুরিস্ট ভিসা দেবে। আর এ ভিসা দেওয়ার ক্ষেত্রে ধর্মীয় পরিচয়কে আমলে নেওয়া হবে না। উত্তর আমেরিকা, ইউরোপ ও এশিয়ার বিভিন্ন দেশ এ ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবে।

সৌদির রাষ্ট্রায়ত্ত টেলিভিশন চ্যানেল এক প্রতিবেদনে বলেছে, টুরিস্ট ভিসা চালু হওয়ার পর প্রথম ১০ দিনে ২৪ হাজার পর্যটক সৌদি আরবে প্রবেশ করে। ২০৩০ সাল নাগাদ দেশটি বছরে অন্তত ১০০ মিলিয়ন পর্যটক প্রত্যাশা করছে।

আরব উপদ্বীপের দেশ সৌদি আরব। এর সাথে সাতটি দেশের স্থল সীমান্ত রয়েছে। প্রথমবারের মতো হেগ্রা ও পেত্রার সংযোগও স্থাপিত হয়েছে।

২০২০ সালের সেপ্টেম্বরে সংযুক্ত আরব আমিরাত ও বাহরাইন আব্রাহাম অ্যাকর্ডের আওতায় ইসরায়েলের সঙ্গে চুক্তি করে। ওই চুক্তির ফলে ১৯৯০ সালের পর ফের ইসরায়েলের সঙ্গে আরব দেশগুলোর সম্পর্ক স্বাভাবিক হতে শুরু করে। এরই ধারাবাহিকতায় সৌদি আরব কর্তৃপক্ষ পর্যটনের প্রতি জোর দেয়। কারণ, দেশটির যুবরাজ মোহাম্মদ বিন সালমান তেলনির্ভর অর্থনীতি থেকে বের হতে চাইছেন।

সৌদি আরবের সঙ্গে সাতটি দেশের স্থল সীমান্ত রয়েছে। ফলে ইসরায়েলের সঙ্গে চুক্তির ফলে অন্য আরব দেশগুলোর মধ্যে যাতায়াত শুরু হলে সৌদির ভূমি ব্যবহার করতে হবে। এ সুযোগই কাজে লাগাতে চাইছে সৌদি আরব পর্যটনকেন্দ্রিক অর্থনীতি বিকাশে।

ব্রিটেনের ইসরায়েল টুরিস্ট কার্যালয়ের পরিচালক শ্যারন বারশাদাস্কি জানান, গত নভেম্বরের পর থেকে সরাসরি ফ্লাইটে ৬৭ হাজার ইসরায়েলি দুবাই ভ্রমণ করে। তবে করোনা সংক্রমণ বাড়ার কারণে বর্তমানে এ ভ্রমণ বন্ধ রয়েছে। সংযুক্ত আরব আমিরাত ও ইসরায়েল চুক্তি স্বাক্ষরের পর এখন মধ্যপ্রাচ্য আন্তর্জাতিক পর্যটকদের জন্য নিরাপদ অঞ্চলে পরিণত হয়েছে বলে জানান তিনি।

এর বাইরে কাতারের ওপর থেকে অবরোধ তুলে নিয়েছে সৌদি আরব। ফলে সৌদি আরব ভ্রমণের পর পর্যটকরা ধনী দেশটিতে সরাসরি বিমান ছাড়াও স্থল সীমান্ত দিয়ে যেতে পারবে।

অন্যদিকে ওমানে দুই সপ্তাহের ভ্রমণের জন্য যুক্তরাজ্য, ইউরোপীয় ইউনিয়নসহ অন্তত ১০৩টি দেশের কোনো ভিসা লাগবে না বলে জানিয়েছে দেশটির কর্তৃপক্ষ। আগে দেশটি ভ্রমণে ১৩ ডলারের ভিসা লাগতো।

সৌদি আরবে টিকা নেয়া নাগরিকরা বিদেশ ভ্রমণে যেতে পারবেন
ভ্রমণ নিষেধাজ্ঞা তুলে নিল সৌদি

আপনার মতামত লিখুন