রোববার, ০৫ ডিসেম্বর ২০২১ | ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ
অর্থনীতি

প্রযুক্তিপণ্যের গবেষণায় ওয়ালটন-আহছানউল্লা বিশ্ববিদ্যালয় চুক্তি

নিজস্ব প্রতিবেদক
০৯ নভেম্বর ২০২১
চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে উপস্থিত উভয় প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা

চুক্তি স্বাক্ষর অনুষ্ঠানে উপস্থিত উভয় প্রতিষ্ঠানের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা

বিশ্বের সর্বাধুনিক প্রযুক্তি নিয়ে ওয়ালটন কারখানায় গবেষণা ও কাজের সুযোগ পাচ্ছেন দেশের মেধাবী মানুষেরা। এরই অংশ হিসেবে এবার ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের সঙ্গে সম্প্রতি একটি সমঝোতা চুক্তি (এমওইউ) সই করেছে বেসরকারি আহছানউল্লা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। চুক্তির আওতায় প্রতিষ্ঠান দুটি প্রযুক্তিনির্ভর পণ্য উৎপাদন, গবেষণা এবং মান উন্নতকরণ প্রক্রিয়া সমন্বয় করবে।

রোববার (৭ নভেম্বর, ২০২১) রাজধানীর তেজগাঁও শিল্প এলাকায় আহছানউল্লা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে চুক্তিটি স্বাক্ষরিত হয়। ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের ডেপুটি ম্যানেজিং ডিরেক্টর প্রকৌশলী লিয়াকত আলী এবং আহছানউল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. মুস্তাফিজুর রহমান নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে চুক্তিতে সই করেন।

এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ ফাজলী ইলাহী এবং উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মাহবুবুর রহমান, প্রকৌশল অনুষদের ডিন অধ্যাপক ড. এসএমএ আল মামুন, ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেকট্রনিক্স ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ড. একেএম বাকি, কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের প্রধান অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ শফিউল আলম, রেজিস্ট্রার ড. মোশারফ হোসেইন, কম্পিউটার ও আইটি পণ্যের প্রধান বাণিজ্যিক কর্মকর্তা তৌহিদুর রহমান রাদ এবং ওয়ালটনের তথ্যপ্রযুক্তি ও সফটওয়্যার বিভাগের ইন-চার্জ সঞ্জয় কুমার রায় প্রমুখ।

অনুষ্ঠানে প্রকৌশলী লিয়াকত আলী বলেন, ‘বাংলাদেশে ইলেকট্রনিক্স ও প্রযুক্তিপণ্যের চাহিদা পূরণ করে চলেছে ওয়ালটন। এ লক্ষ্যে নিজস্ব ব্যবস্থাপনায় পিসিবি এবং পিসিবিএ কম্পোনেন্ট উৎপাদন ও সরবরাহ করছে প্রতিষ্ঠানটি। ওয়ালটন ডিজি-টেক ইন্ডাস্ট্রিজ লিমিটেডের এসব প্রকল্পে কাজ করছেন অসংখ্য বিএসসি এবং ডিপ্লোমা ইঞ্জিনিয়াররা। চুক্তির আওতায় উভয় প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সৌহার্দ্যপূর্ণ সম্পর্ক সৃষ্টি এবং পারস্পারিক সমঝোতার মাধ্যমে যৌথ উদ্যেগে বিভিন্ন প্রকল্প পরিচালিত হবে। আরও অনেক মেধাবী প্রকৌশলী ওয়ালটনে কাজ করার সুযোগ পাবেন।’

উপাচার্য অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ ফাজলী ইলাহী জানান, এই চুক্তির মাধ্যমে ওয়ালটন ও আহছানউল্লা বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের সংশ্লিষ্ট সবাই উপকৃত হবেন। দুটি প্রতিষ্ঠানের মধ্যে সম্পর্ক দৃঢ় হবে। তরুণ প্রকৌশলীদের কর্মক্ষেত্র আরও বিস্তৃত হবে।

উল্লেখ্য, ক্রেতাদের ক্রয়ক্ষমতার কথা বিবেচনা করে নিজস্ব কারখানায় উন্নতমানের ল্যাপটপ, ডেস্কটপ, অল ইন ওয়ান, ট্যাবলেট কম্পিউটার, এলইডি মনিটর, এসএসডি, র্যাম, কি-বোর্ড, মাউস, পেনড্রাইভ, রাউটার, এসডি কার্ড, ডিজিটাল রাইটিং প্যাড, পাওয়ার সাপ্লাই ইউনিট, ইউপিএস ইত্যাদি উৎপাদন করে আসছে ওয়ালটন। দেশের চাহিদা মিটিয়ে ৪০টিরও বেশি দেশে রপ্তানি হচ্ছে ওয়ালটন পণ্য।

ওয়ালটন ফ্যান ও ক্যাবলসের নতুন শোরুম নবাবপুরে
বুধবার শুরু হবে ওয়ালটন-ডিআরইউ মিডিয়া ক্রিকেট

আপনার মতামত লিখুন