শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২ | ২৮ শ্রাবণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
অর্থনীতি

ক্রস বর্ডার ট্যুরিজম নিয়ে জোট বাঁধছে বাংলাদেশ-ভারত

নিজস্ব প্রতিবেদক
০৫ আগস্ট ২০২২
মিতালী এক্সপ্রেস

মিতালী এক্সপ্রেস

দুর্গাপূজা শুরুর আগেই ক্রস বর্ডার ট্যুরিজম নিয়ে নতুনভাবে জোট বাঁধার প্রস্তুতি শুরু করেছে ভারত-বাংলাদেশ। দুই দেশের মধ্যে পর্যটকদের জোয়ার টানতে এবার এক টেবিলে বসতে চলেছে দুই দেশের দুটি পর্যটন সংস্থা।

ভারতের পর্যটন মন্ত্রণালয়ের সহযোগিতায় ভারতের হিমালয়ান হসপিটালিটি অ্যান্ড ট্যুরিজম ডেভেলপমেন্ট নেটওয়ার্ক এবং বাংলাদেশের প্যাসিফিক এশিয়া ট্রাভেলস এজেন্টের যৌথ উদ্যোগে শিলিগুড়িতে হতে চলেছে রিথিংকিং ক্রস বর্ডার ট্যুরিজম। আগামী ৭ থেকে ১১ অগাস্ট পর্যন্ত চলা পর্যটনের আসর শুধু আলোচনার মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকবে না, সীমান্তপাড়ের পর্যটনে গতি দিতে দুই দেশ পরস্পরের সঙ্গে হাত মেলাবে।

হিমালয়ান হসপিটালিটি অ্যান্ড ট্যুরিজম ডেভেলপমেন্ট নেটওয়ার্কের সাধারণ সম্পাদক সম্রাট সান্যাল বলছেন, কোভিড ভীতি দূর হওয়ার পাশাপাশি এখন যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নতি ঘটেছে। প্রচুর পর্যটক দুই দেশের মধ্যে যাতায়াত করছেন। এমন পরিস্থিতিতে শিলিগুড়িকে ফোকাস করে উত্তরবঙ্গ এবং নেপালে পর্যটনের প্রসার ঘটাতে চাইছি আমরা।

বাংলাদেশের প্যাসিফিক এশিয়া ট্রাভেলস এজেন্টের সভাপতি তৌফিক রহমানের বক্তব্য, প্রকৃতি এবং প্রাচুর্যে ভরা উত্তরবঙ্গ ও সংলগ্ন জায়গাগুলি নিয়ে আমাদের দেশের পর্যটকদের মধ্যে আকর্ষণ কম নয়। পাশাপাশি বাংলাদেশ নিয়ে উত্তরবঙ্গের বিশেষ আগ্রহ রয়েছে। দূরত্ব কাছে এনে দিয়েছে বর্তমানের যোগাযোগ ব্যবস্থা। তাই আমরা ভারত-বাংলাদেশের মধ্যে পর্যটনের মধ্যে নতুন দরজা খুলতে চাইছি।

কোভিড পরবর্তী পরিস্থিতিতে দুই দেশের মধ্যে বাস চলাচল শুরু হয়েছে। চাকা গড়িয়েছে বহু প্রতীক্ষিত মিতালি এক্সপ্রেসের। মূলত ট্রেন চলাচল শুরু হওয়ায় দুই দেশের মধ্যে পর্যটন গতি পেয়েছে। সিকিম, দার্জিলিং এবং উত্তরবঙ্গে বেড়াতে আসছেন শয়েশয়ে বাংলাদেশের পর্যটক। বাংলাদেশের সুন্দরবন, কক্সবাজার সহ একাধিক জায়গায় বেড়াতে যাচ্ছেন উত্তরবঙ্গের পর্যটকরাও। দুর্গাপুজোকে কেন্দ্র করে দুই দেশের মধ্যে যাতে আরও বেশি সংখ্যক পর্যটকের পা পড়ে, সেই চেষ্টা শুরু করল হিমালয়ান হসপিটালিটি অ্যান্ড ট্যুরিজম ডেভেলপমেন্ট নেটওয়ার্ক এবং প্যাসিফিক এশিয়া ট্রাভেলস এজেন্টস অ্যাসোসিয়েশন।

সংগঠন দুটি সূত্রে জানা গেছে, আগামী ৭ থেকে ১১ অগাস্ট বাংলাদেশের ১৫ সদস্যের দলটি পশ্চিমবঙ্গের পাহাড়, ডুয়ার্সসহ উত্তরবঙ্গের বিভিন্ন জায়গা ঘুরে দেখবে ও তথ্য সংগ্রহ করবে। যা নিয়ে তারা প্যাকেজ তৈরি করবে। এই প্যাকেজ তৈরির সূত্র ধরেই তারা বিজনেস টু বিজনেস বা বি টু বি-তে অংশ নেবে ভারতের পর্যটন ব্যবসায়ীদের সঙ্গে। ফলে দুই দেশের পর্যটন ব্যবসা নতুন গতি পাবে বলেও মনে করছেন ব্যবসায়ীরা।

ওয়ালটন ‘ব্র্যান্ডিং হিরোস’ অ্যাওয়ার্ড পেল ৪৭ ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠান
দেশের পর্যটনশিল্প এগোয়নি ৫০ বছরেও

আপনার মতামত লিখুন