শনিবার, ০১ অক্টোবর ২০২২ | ১৬ আশ্বিন ১৪২৯ বঙ্গাব্দ
সীমানার ওপারে

শ্রীলঙ্কার পর্যটন খাতে ফিরছে সুদিন, ৮ মাসে আয় ৮৯ কোটি ডলার

অনলাইন ডেস্ক
২০ সেপ্টেম্বর ২০২২

ঘুরে দাঁড়াচ্ছে দেউলিয়া রাষ্ট্র শ্রীলঙ্কার পর্যটন খাত। গত ৩ বছরে করোনাভাইরাস মহামারি, অর্থনৈতিক মন্দা ও রাজনৈতিক অচলাবস্থার কারণে দেশটির গুরুত্বপূর্ণ এই সেবা খাত বড় আকারে ক্ষতির শিকার হওয়ার পর সাম্প্রতিক সময়ে এই খাতের সুদিন ফিরে এসেছে। 

শ্রীলঙ্কার গণমাধ্যম দ্য ডেইলি মিররের এক প্রতিবেদনে মত প্রকাশ করা হয়েছে, বৈশ্বিক পর্যটন খাত পুনরুজ্জীবিত হওয়া এবং শ্রীলঙ্কার সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ ও পর্যটন খাতের অংশীদারদের যৌথ উদ্যোগে দেশটিতে পর্যটকের সংখ্যা বাড়ছে।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, আগস্টে শ্রীলঙ্কা এই খাত থেকে ৬ কোটি ৭৯ লাখ ডলার উপার্জন করেছে। জুলাইয়ের উপার্জন ছিল ৮ কোটি ৫১ লাখ ডলার।

জুলাইতে দেশটিতে ৪৭ হাজার ২৯৩ জন পর্যটক আসেন। আগস্টে এ সংখ্যা প্রায় ১০ হাজার কমেছে। তবে দেশটির পর্যটন খাতের সংশ্লিষ্টরা আসন্ন পর্যটন মৌসুমে অনেক পর্যটকের আগমনের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছেন।

এ বছরের মার্চের পর থেকে ডলারের বিপরীতে দেশটির মুদ্রার মান অনেক কমে যাওয়াতে শ্রীলঙ্কা এখন একটি অপেক্ষাকৃত কম খরচের পর্যটন গন্তব্যে পরিণত হয়েছে।

জুলাইতে দেশব্যাপী বিক্ষোভের পর দেশটির নিরাপত্তা ও সার্বিক পরিস্থিতির অনেকটাই উন্নতি হয়েছে। কয়েক সপ্তাহ আগে ইউরোপের বেশ কয়েকটি দেশ শ্রীলঙ্কায় যাতায়াতের বিধিনিষেধ শিথিল করেছে।

আগস্টের রাজস্ব সহ এ বছরের ৮ মাসে পর্যটন খাত থেকে আয়ের পরিমাণ বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৮৯ কোটি ২৮ লাখ ডলারে। ২০২১ সালের প্রথম ৮ মাসে করোনাভাইরাস মহামারির প্রভাবে রাজস্বের পরিমাণ ছিল মাত্র ৬ কোটি ৩৫ লাখ ডলার।

কর্তৃপক্ষ আশা করছে, পর্যটন খাত থেকে এ বছর অন্তত ১০০ কোটি ডলার আয় হবে। 

এই খাত থেকে অর্জিত বৈদেশিক মুদ্রা এবং অভিবাসী কর্মীদের পাঠানো রেমিট্যান্সের সম্মিলিত প্রভাবে দেশের বৈদেশিক মুদ্রা সংকটের নিরসন হতে পারে বলে বিশেষজ্ঞরা আশা প্রকাশ করেছেন।

পর্যটন নিয়ে রচনা প্রতিযোগিতা, জিতলে হোটেলে থাকাসহ নানা পুরস্কার
১০ বছরেও উন্নয়নের ছোঁয়া লাগেনি মৌলভীবাজারের পর্যটন খাতে

আপনার মতামত লিখুন